মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

আমাদের অর্জন সমূহ

১৮৫৩ সালে পোস্টস এ্যান্ড টেলিগ্রাফ ডিপার্টমেন্ট নামে যাত্রা শুরু করে পরবর্তীতে টেলিগ্রাফ এ্যান্ড টেলিফোন শেষে বাংলাদেশ তার ও টেলিফোন বোর্ড (বিটিটিবি)। টেলিযোগাযোগ সেবার মান বৃদ্ধি, গতিশীল, ও লাভজনক প্রতিষ্ঠানে রুপ দেওয়ার জন্য ২০০৮ সালের জুলাই মাসে বাংলাদেশ সরকারে একমাত্র টেলিযোগাযোগ সেবা দানকারী প্রতিষ্ঠানটিকে কোম্পানিতে রুপান্তর করা হয়। বাংলাদেশে টেলিকমিউনিকেশন্স কোম্পানি লিমিটেড (বিটিসিএল) ল্যান্ড লাইন টেলিফোন সেবার পাশাপাশি এডিএসএল ইন্টারনেট, GPON ও উচ্চ মাত্রার ব্যান্ডউইথ সংযোগ প্রদান করে থাকে। এছাড়াও ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণে দেশব্যাপী ওয়েবভিত্তিক স্বয়ংক্রিয় সেবা ব্যাবস্থা জনগনের দোরগোড়ায় পৌছে দিতে .BD ও .বাংলা ডোমেইন প্রমোশন সেল (DPC) গঠন করা হয়েছে। সরকারের টেলিযোগাযোগ সংক্রান্ত বিভিন্ন টেকনিক্যাল বিষয়ে পরামর্শ প্রদান ছাড়াও বর্তমানে দেশের এই সেক্টরে সুষ্ঠ পরিচালনা ও ডিজিটাল নিরাপত্তা বিধানের জন্য "সাইবার থ্রেট ডিটেকশন এ্যান্ড রেসপন্স" নামক একটি গুরুত্বপূর্ণ প্রকল্প বাস্তবায়ন করছে। যোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবস্থায় জনগণকে সম্পৃক্ত করার সরকারি নানান উদ্যোগের ফলে বাংলাদেশে মোবাইল ফোনের গ্রাহক সংখ্যা ২০১৮ সালের শেষে ১৫.৪১ কোটি এবং ইন্টারনেট গ্রাহক সংখ্যা প্রায় ৯.০৫ কোটি। বর্তমানে দেশে টেলিডেনসিটি প্রায় ৯৪% এবং ইন্টারনেট ডেনসিটি প্রায় ৫৫%। ব্যান্ডউইথ এব ব্যাবহার এখন প্রায় ৯০০ জিবিপিএস। ৪জি এবং মোবাইল নাম্বার পোর্টাবিলিটি (এমএনপি) চালু করা হয়েছে। ইতিমধ্যে দেশের প্রায় সবকটি উপজেলা সহ প্রায় ৯০ ভাগ ইউনিয়ন পরিষদে অপটিক্যাল ফাইবার সংযোগ প্রদান করা হয়েছে। যা আগামী জুন ২০১৯ এর মধ্যেই শতভাগ বিস্তৃত করা হবে। ব্যান্ডউইথ এর ক্রমবর্ধমান চাহিদা মেটাতে ইতিমধ্যে দ্বিতীয় সাবমেরিন ক্যাবল (SEA-ME-WE-5) ল্যান্ডিং ষ্টেশন কুয়াকাটায় স্থাপন করা হয়েছে। বিশ্বের ৫৭তম দেশ হিসেবে বাংলাদেশের প্রথম স্যাটেলাইট "বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১" মহাকাশে উৎক্ষেপন করা হয়েছে। উন্নয়নের এই ধারাবাহিকতায় ঝিনাইদহ জেলায় ২ টি গ্রোথ সেন্টার সহ ৮ টি টেলিফোন এক্সচেঞ্জ রয়েছে। কপার ক্যাবল সংযোগ রয়েছে প্রায় ৩০০ কিঃমিঃ ব্যাপী। যার মাধ্যমে ১২৭১১ টি সংযোগ প্রদান করা সম্ভব। বর্তমানে সংযোগ রয়েছে প্রায় ১৮৬৫ টি। ADSL এর সক্ষমতা রয়েছে ৫৩৬ টি বর্তমানে সংযোগ রয়েছে ১৬০ টি। লিজড লাইন সংযোগ রয়েছে ১২ টি। ৫ টি উপজেলা গঠিত ঝিনাইদহ জেলার সবকটি উপজেলা অপটিক্যাল ফাইবার দ্বারা সম্পৃক্ত। এছাড়াও ৬৭ ইউনিয়নে অপটিক্যাল ফাইবার সংযোগ প্রদান করা হয়েছে। জেলায় স্থাপিত মোট ফাইবারে দৈর্ঘ্য প্রায় ৫০০ কিঃমিঃ। রুপকল্প ২০২১, এসডিজি ২০৩০ এবং রুপকল্প ২০৪১ অর্জনে বিটিসিএল ঝিনাইদহ জেলায় নিরবিচ্ছিন্ন টেলিযোগাযোগ ও নেটওয়ার্ক ব্যবস্থাপনা নিশ্চিত করার জন্য বিভিন্ন কর্মপরিকল্পনা গ্রহন করেছে। এর মধ্যে রয়েছ POP সংখ্যা বৃদ্ধি, বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ইন্টারনেট সংযোগ, IP নেটওয়ার্ক চালু, GPON চালু করা ইত্যাদি।

ছবি


সংযুক্তি


সংযুক্তি (একাধিক)



Share with :

Facebook Twitter